89439065_2278615245574456_3542675547580530688_o-1

আমার দেখা কেরানীগঞ্জ

By Azizul Islam

ও ইনসার আলীর খুদের খিচুড়িঃ
বালির শহর, ধুলার শহর,তারের শহর,জ্যামের শহর, তারপরেও এটাই আমাদের প্রানের শহর।
এ শহরের হাজারো বিড়ম্বনা ছেড়ে কিছুটা গ্রামের হাওয়া গায়ে লাগাতে চাইলে কেরানিগঞ্জকে বেছে নিতে পারেন।


গ্রাম আর শহরের মিশ্রনে কেরানীগঞ্জ ঘুরতে আপনার খারাপ লাগবেনা,এখানে পাবেন গ্রাম,পাবেন গ্রামের মাঠ,পাবেন ধলেশ্বরী নদী,আর ধলেশ্বরী নদীর পাড়ের মুক্ত বাতাস যদিও সব জায়গায়তে এই মুক্ত বাতাস পাবেন্না,


আর ঘুরতে ঘুরতে ক্লান্ত হয়ে গেলে আপনি চলে যেতে পারেন ইনসার আলীর খুদের খিচুড়ি খেতে,সোহানা হোটেল নামেই পরিচিত,
এই খুদের খিচুড়ির একটা অন্য রকম স্বাদ আছে,বিশেষ করে যারা সাইকেল রাইডে যান তাদের কাছে এটা বিশেষ প্রিয়।

বিঃদ্রঃ-১০ রকম ভর্তা এখন নাই ভর্তা ৬/৭ রকমের করে এখন,আর মাংস খিভুড়ি খেতে চাইলে,আপনাকে অবশ্যই শুক্রবারে জেতে হবে।
#যাতায়াত মাধ্যম:–মুলত এই কেরানিগঞ্জের অলিগলি ঘুরতে গ্রামের স্বাদ পুরাপুরি ভাবে নিতে,আর ধলেশ্বরী নদির সৌন্দর্য দেখতে চাইলে আপনাকে বাই সাইকেল নিয়ে বের হতে হবে,মোটর বাইক নিয়ে বের হলেও কিছুটা পাবেন।

👉👉আপনি যে কোন জায়গা থেকে চলে আসুন
মোহাম্মাদপুর সি এনজি স্ট্যান্ড -সেখান থেকে সি এন জি লোকাল সিস্টেমে ইস্পাহানী কলেজ,(৩০-৪০ টাকা)।তারপরে অটো বা রিকসায় সরাসরি গোয়ালখালী সোহানা হোটেল।-১৫/২০

🚓🚓বাবুবাজার ব্রিজ থেকে কদমতলী নামবেন লেগুনা/বাসে করে। ভাড়া ১০ টাকা। তারপর কদমতলী থেকে অটো যায়। পার পারসন ভাড়া ৫০ টাকা। 🙂

🚕আপনারা আটিবাজারের মোড় থেকে সি এনজি রিজার্ভ করেও এই রাস্তা দিয়ে ঘুরতে ঘুরতে যেতে পারেন ২০০/২৫০ টাকা নিবে বড় জোর।

#আমাদের ভ্রমনের গল্প ছবি গল্প আকারে লেখা আছে চাইলে পড়ে নিতে পারেন।

🙏আপনার দারা সৃষ্ট ময়লা আবর্জনা যেখানে সেখানে না ফেলে নিদিষ্ট স্থানে ফেলুন।

Comments are closed.